মুহম্মদ জাফর ইকবাল নাস্তিক-মুরতাদদের গুরু, দাবি মুফতি ফয়জুল্লাহর

লেখক ও কলামিস্ট মুহম্মদ জাফর ইকবালকে ইসলাম ও রাষ্ট্রদ্রোহী উল্লেখ করে তাকে গ্রেফতার করে বিচারের মুখোমুখি করার দাবি জানিয়েছে ইসলামী ঐক্যজোট।

জোটের মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহ বলেন, ইসলামবিদ্বেষী গোষ্ঠীর উগ্রবাদীতার পেছনের শক্তি এই জাফরদের রুখে দিতে সবাইকে এগিয়ে আসতে হবে। মুহম্মদ জাফর ইকবালকে নাস্তিক-মুরতাদদের গুরু এবং বিশ্বনবী সাল্লাল্লাহু আলায়হি ওয়াসাল্লামকে অবমাননাকারীদের পৃষ্টপোষকও বলে মন্তব্য করেন তিনি।

রবিবার সংবাদ মাধ্যমে পাঠানো এক বিবৃতিতে ইসলামী ঐক্যজোটের মহাসচিব মুফতি ফয়জুল্লাহ এ কথা বলেন।

মুফতি ফয়জুল্লাহ বলেন, ইসলাম বিদ্বেষীরা ইসলাম ও মুসলমানকে অশ্লীল বাক্যবানে জর্জরিত করে উম্মাহবিরোধী উগ্রবাদ ছড়িয়ে দিয়েছে। নাস্তিক্যবাদী জঙ্গি অপতৎপরতা চালিয়ে ইসলাম ও ইসলামী দর্শনকে উগ্রপন্থায় আক্রমণ করে মানুষের হৃদয় চূর্ণ বিচূর্ণ করে দিয়ে বিশ্বাসীদের মানবাধিকার লঙ্ঘন করছে। আমরা দেশে কোনও অনভিপ্রেত ঘটনা দেখতে চাই না। ৯২ ভাগ মানুষের ধর্মীয় অনুভূতিতে আঘাতকারী, আল্লাহ ও রাসূলের অবমাননাকারী কুলাঙ্গারদের যদি শান্তিপ্রিয় মানুষ প্রতিরোধ করতো তবে আল্লাহদ্রোহী মুরতাদদের জন্য আল্লাহর জমিন হারাম হয়ে যেতো। নাস্তিক মুরতাদদের বিরুদ্ধে ইসলামী বিধান অনুযায়ী সর্বোচ্চ শাস্তির আইন না করা হলে, নাস্তিক্যবাদী জঙ্গিদের অব্যাহত আক্রমণের কারণে ধর্মপ্রাণ মানুষের মনে সৃষ্ট ক্ষোভ ও অসন্তোষ বন্ধ করা সম্ভব হবে না ।

উল্লেখ্য, তিনি হেফাজতে ইসলামের যুগ্ম মহাসচিব এবং একইসঙ্গে হেফাজতের ৫ মে’র আন্দোলনের সময় সংহিসতার একাধিক মামলার আসামি।